স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে সাম্প্রদায়িক নরেন্দ্র মোদীকে আমন্ত্রণ বাাতিলের দাবীতে না’গঞ্জে বাম গণতান্ত্রিক জোটের সমাবেশ

0
173
প্রেস বিজ্ঞপ্তি, নারায়ণগঞ্জে: স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে সাম্প্রদায়িক নরেন্দ্র মোদীকে আমন্ত্রণ বাাতিলের দাবীতে বাম গণতান্ত্রিক জোট নারায়ণগঞ্জ জেলা দেশব্যাপী কর্মসূচীর অংশ হিসেবে বুধবার (২৪ মার্চ) বিকালে ২নং রেল গেইটে বিক্ষোভ সমাবেশ ও শহরে কালো পতাকা মিছিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। বাম গণতান্ত্রিক জোটের নারায়ণগঞ্জ জেলার সমন্বয়ক হাফিজুল ইসলাম’র সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, কমিউনিস্ট পার্টির নারায়ণগঞ্জ জেলার সাধারণ সম্পাদক শিবনাথ চক্রবর্তী, বাসদ জেলা ফোরামের সদস্য আবু নাঈম খান বিপ্লব, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির জেলার সভাপতি মাহমুদ হোসেন, গণসংহতি আন্দোলনের জেলার সমন্বয়ক তরিকুল সুজন।

নেতৃবৃন্দ বলেন, স্বাধীনতার পর মুক্তিযুদ্ধের মূল চেতনা হিসেবে আমাদের দেশের সংবিধানে রাষ্ট্রীয় মূলনীতি হিসাবে ধর্ম নিরপেক্ষতা, গণতন্ত্র সমাজতন্ত্র, জাতীয়তাবাদ সন্নিবেশিত হয়। অথচ স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী যখন পালিত হচ্ছে তখন রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানে অতিথি হিসাবে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে ভারতের প্রধানমন্ত্রী সাম্প্রদায়িক নরেন্দ্র মোদীকে। নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে গুজরাটে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা তৈরি করে ভারতের সংখ্যালঘু শত শত মুসলিম হত্যা করা হয়। ভারতের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর নরেন্দ্র মোদী ভারতকে হিন্দু সাম্প্রদায়িক রাষ্ট্রে পরিণত করেছে। ভারত ইতিমধ্যে একটি সাম্রাজ্যবাদী দেশের চরিত্র অর্জন করেছে। তারা বাংলাদেশকে একটি লুটপাটের দেশে পরিণত করছে।

ভারতের সাথে বিশাল বাণিজ্য বৈষম্য, সীমান্তে হত্যা, তিস্তা নদী সহ ৫৪ টি নদীর পানি বণ্টন সমস্যা, অবাধে একতরফাভাবে ভারতের বাণিজ্যিক প্রয়োজনে বাংলাদেশের স্থল, জল ও আকাশপথ ব্যবহার ইত্যাদি সমস্যা নিয়ে নরেন্দ্র মোদী’র সাথে আলোচনা হবে না। বাস্তবে নরেন্দ্র মোদী পশ্চিমবঙ্গের নির্বাচনে বিজেপির ভোট পাওয়ার জন্য বাংলাদেশে নিম্নবর্ণের হিন্দুদের মন্দির পরিদর্শনে এসেছে। পক্ষান্তরে গণবিচ্ছিন্ন শেখ হাসিনা সরকার ক্ষমতায় টিকে থাকতে মোদী সরকারের আশীর্বাদ পাওয়ার জন্যই নরেন্দ্র মোদীকে অতিথি করেছে। সাম্প্রদায়িক নরেন্দ্র মোদীকে সুবর্ণজয়ন্তীতে আমন্ত্রণ জানিয়ে সরকার মুক্তিযুদ্ধের চেতনার সাথে বিশ্বসঘাতকতা করেছে। অবিলম্বে নরেন্দ্র মোদীকে আমন্ত্রণ প্রত্যাহার করতে হবে।

নেতৃবৃন্দ মঙ্গলবার (২৩ মার্চ) বাম ছাত্র সংগঠনগুলোর কর্মসূচীতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্র লীগ’র হামলার নিন্দা জানিয়ে হামলাকারী ছাত্র লীগ সন্ত্রাসীদের অবিলম্বে গ্রেফতারের দাবী জানান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here